‘আফ্রিদির হাতে পাকিস্তানের সাফল্যের চাবি’

77

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

আফগানিস্তানের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ দিয়ে চোট কাটিয়ে ফেরেন শাহীন শাহ আফ্রিদি। বাঁহাতি এই পেসারের আগুনে সেদিন পুড়েছিলেন রহমানুল্লাহ গুরবাজরা। আফ্রিদির দুর্দান্ত ডেলিভারিতে গুরবাজকে যেতে হয়েছিল হাসপাতালেও। তবে প্রস্তুতি ম্যাচের সেই ধার দেখা যায়নি ভারত ও জিম্বাবুয়ের ম্যাচে। কোনভাবেই যেন নিজের ছন্দ ফিরে পাচ্ছিলেন না পাকিস্তানের এই পেসার।

ভারত ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ব্যর্থ হওয়ার পর আফ্রিদিকে বাদ দেয়ার কথাও বলেছিলেন পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটাররা। তবে ক্রমশই নিজের ছন্দে ফিরতে শুরু করেছেন তিনি। গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ৪ উইকেট নিয়ে পাকিস্তানকে তুলেছেন সেমিফাইনালে। শতভাগ ফিট না হলেও রিকি পন্টিং মনে করেন, পাকিস্তানের সাফল্যের চাবি আফ্রিদির হাতে।

আইসিসির প্রকাশিত এক ভিডিওতে অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ জয়ী সাবেক অধিনায়ক পন্টিং বলেন, ‘সে (আফ্রিদি) হয়তো বলতে পারে যে, এখনও শতভাগ ফিট হয়নি। তবে আমি যেমনটা দেখেছি, সে দারুণভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। টুর্নামেন্টে পাকিস্তানের সামনে এগিয়ে যাওয়ার চাবি তার হাতে।’

বিশ্বকাপের এবারের আসরে পাঁচ ম্যাচেই খেলেছেন আফ্রিদি। যেখানে দুই ম্যাচে উইকেটশূন্য থাকা বাঁহাতি এই পেসার বাকি তিন ম্যাচে নিয়েছেন ৮ উইকেট। সাউথ আফ্রিকার বিপক্ষে মাত্র ১৪ রানে ৩ উইকেট নিয়ে দলের জয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছিলেন তিনি। আফ্রিদি শতভাগ ফিট না থাকলেও খেলায় প্রভাব রাখতে পারেন বলে মনে করেন পন্টিং।

তিনি বলেন, ‘(আমার কখনও কোনো সন্দেহ ছিল না) কারণ মাঠে নামলে তার সামর্থ্য কী সেটা সবাই জানি। সে যদি শতভাগ ফিট নাও হয়, নিজের ৯০ ভাগ দিয়ে খেলতে পারলেও ম্যাচে অনেক প্রভাব রাখতে পারবে। কারণ সে এতটাই ভালো।’

‘দেখুন, হতে পারে তার নিজের মনের মধ্যে কিছুটা চিন্তা ঢুকে গিয়েছিল কিংবা পাকিস্তানের কোচিং স্টাফ ও অন্যান্য দায়িত্বরতরাও দুর্ভাবনায় পড়েছিল। কিন্তু আর নয়। সে সত্যিই অনেক ভালোভাবে ঘুরে দাঁড়িয়েছে এবং আশা করি পরের দুই ম্যাচেও তা ধরে রাখবে।’

Get real time updates directly on you device, subscribe now.