কাতারে ফুটবল বিশ্বকাপ আয়োজনের সিদ্ধান্ত বিশাল বড় ভুল ছিল, মন্তব্য প্রাক্তন FIFA সভাপতির

246

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

ফিফা বিশ্বকাপ ২০২২ হতে আর দু সপ্তাহ সময়ও বাকি নেই। ফুটবল প্রেমীদের মনে ফের একবার শীতকালে বসন্তের রঙ ধরতে শুরু করেছে। সবদিকে সাজো সাজো রব উঠে গিয়েছে। ক্লাবগুলি বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করার জন্য নিজের ফুটবলারদের ছাড়তে শুরু করে দিয়েছে। সব মিলিয়ে ফুটবলপ্রেমীরা তৈরি ফুটবল বিশ্বকাপের ২২ তম সংস্করণের মজা উপভোগ করতে।

এরই মধ্যে প্রাক্তন ফিফা সভাপতি সেপ ব্লাটারের একটি মন্তব্য আলোড়ন সৃষ্টি করেছে ফুটবল দুনিয়ায়। ব্লাটার বলেছেন যে কাতারকে ২০২২ বিশ্বকাপের আয়োজনের দায়িত্ব দেওয়ার সিদ্ধান্ত একটি “ভুল” ছিল। ২০১০ সালে, ফিফার কার্যনির্বাহী কমিটি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বদলে টুর্নামেন্টের আয়োজক কাতারকে ১৪-৮ ফলে ভোটে জিতিয়ে দেয়।

লাটার এএফপির জার্মান ক্রীড়া সহায়ক সংস্থা এসআইডিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, “আমি যখন ফিফার সভাপতি ছিলাম তখন আমারই একটি সিদ্ধান্তের উপর ভিত্তি করে পরিকল্পনাটির বাস্তবায়ন করা হয়েছিল। তাই আমাকেও এই ঘটনার জন্য দায়বদ্ধতা নিতেই হবে।”

লাটার দীর্ঘ ১৭ বছর ফিফা সভাপতি ছিলেন। তারপর ২০১৫ সালে তিনি তৎকালীন ইউয়েফা সভাপতি মিশেল প্লাতিনির কাছে দুই মিলিয়ন সুইস ফ্রাঙ্ক হস্তান্তরের ব্যবস্থা করার অভিযোগে পদত্যাগ করতে বাধ্য হন। ব্লাটার বর্তমানে প্লাতিনের বিরুদ্ধেও ওই সময় ২০২২ বিশ্বকাপের আয়োজনের ভোট মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে ঘুরিয়ে কাতারের দিকে নিয়ে আসার অভিযোগ তুলেছেন। যদিও প্রাক্তন ইতালিয়ান ফুটবলার এবং ইউএফা সভাপতি সেই দায় সরাসরি অস্বীকার করেছেন।

এখন প্রশ্ন হল এটাই যে বিশ্বকাপ শুরু হওয়ার ঠিক ১১ দিন আগে কেন এই প্রসঙ্গ তুলে আনলেন প্রাক্তন ফিফা সভাপতি। তার একটা বড় কারণ হলো এই মুহূর্তে কাতার বিশ্বকাপ আয়োজন নিয়ে বিশ্বে অনেকের মধ্যেই ক্ষোভ দেখা যাচ্ছে। সুরাপান এবং সমকামীতায় নিষেধাজ্ঞা জারি করা, রাত্রে যৌন মিলনে বড় শাস্তি নানা প্রকার মানবাধিকার লঙ্ঘনকারী আইন বিদেশ থেকে আগত বিশ্বকাপ দর্শকদের জন্য জারি করেছে কাতার যা নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রবল বিতর্ক আরম্ভ হয়েছে। প্রথমবারের মতো ফুটবল বিশ্বকাপ উত্তর গোলার্ধের শীতকাল চলাকালীন আয়োজন করা হচ্ছে কাতারের গরমের কারণে। সেই সঙ্গে শ্রমিকদের মানুষের মতো খাটিয়ে বিশ্বকাপের স্টেডিয়ামগুলি প্রস্তুত করার মতো অভিযোগ রয়েছে কাতারের বিরুদ্ধে। এই সংক্রান্ত কারণে কাতারে বিশ্বকাপ আয়োজন নিয়ে অসন্তুষ্ট পৃথিবীর একটা বড় সংখ্যক ফুটবলপ্রেমী মানুষ। তাই নিজেদের ভাবমূর্তি স্বচ্ছ রাখতেই এমন অভিযোগ এখন তুলে আনছেন প্রাক্তন ফিফা সভাপতি এমনটাই অনেকের ধারণা।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.