চুক্তির মেয়াদ বাড়ছে হেড কোচ ডোমিঙ্গোর!

35

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ করোনা মহামারীকালে দারুণ কাজ করেছেন রাসেল ডোমিঙ্গো। যখনই তাকে চেয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি), তখনই পেয়েছে। তার অধীনে শুরুটা জাতীয় দলের তেমন ভাল না কাটলেও সম্প্রতি টাইগাররা বেশ ভাল করছে। তাই জাতীয় দলের এই প্রধান কোচের ওপর বেশ সন্তুষ্ট বিসিবি। সে কারণে আগামী বছর টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত তার সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ বাড়তে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন বিসিবির সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। ২০১৯ সালের আগস্টে বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ হিসেবে দুই বছরের চুক্তিতে আবদ্ধ হন ডোমিঙ্গো। সে অনুসারে চলতি মাসের পরই তার চুক্তি শেষ হওয়ার কথা, তবে অক্টোবর-নবেম্বরে অনুষ্ঠিতব্য টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত দায়িত্বে থাকবেন তিনি। তবে পাপন যা বলেছেন তাতে করে আরও ১ বছর বেড়ে ২০২২ সালে অক্টোবর-নবেম্বরে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত টাইগারদের সঙ্গে থাকতে পারেন তিনি।

বাংলাদেশ দলের দায়িত্ব নিয়েই লজ্জার একটি হার দিয়ে শুরু হয় ডোমিঙ্গোর অভিযান। ঘরের মাটিতে টেস্ট ক্রিকেটের নবিন সদস্য আফগানিস্তানের কাছে ২২৪ রানের পরাজয় বরণ করে বাংলাদেশ। অবশ্য ঘরের মাটিতে হওয়া ত্রিদেশীয় টি২০ সিরিজে জিম্বাবুইয়ে ও আফগানিস্তানের বিপক্ষে বেশ ভালই খেলে দল এবং যৌথভাবে চ্যাম্পিয়ন হয় আফগানদের সঙ্গে। পরের মাসেই ভারত সফরে গিয়ে প্রথমবারের মতো তাদের টি২০ ফরমেটে হারানোর কৃতিত্ব দেখায় বাংলাদেশ। তবে সিরিজ হারে ২-১ ব্যবধানে। কিন্তু টেস্ট সিরিজে চরম লজ্জার পারফর্মেন্স দেখিয়ে খুব বাজেভাবে দুই ম্যাচেই হার দেখেন ডোমিঙ্গো। এরপর পাকিস্তান সফরেও টেস্ট, ওয়ানডে ও টি২০ সিরিজে চরম বাজে নৈপুণ্য ছিল বাংলাদেশের। সে সময় ডোমিঙ্গো টিকতে পারবেন না বলে গুঞ্জন ওঠেন। কিন্তু ঘরের মাঠে জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে আবার ওয়ানডে ও টেস্টে ঘুরে দাঁড়ায় বাংলাদেশ। এরপর তো করোনা মহামারীর ধাক্কায় অনেক সিরিজ স্থগিতই হয়ে যায়। নতুন কারও দিকে তাই হাত বাড়াতে পারেনি বিসিবি। করোনা মহামারীর কারণে কেউ কাজ করতেই আগ্রহী ছিলেন না। ডোমিঙ্গো তাই ভাগ্যক্রমে টিকে যান। বিশ্বব্যাপী করোনার ব্যাপক প্রাদুর্ভাবের মধ্যেও ডোমিঙ্গোকে যখনই চেয়েছে বিসিবি, তখনই কাজে যোগ দিয়েছেন।

এ বছর জানুয়ারিতে আবার বাংলাদেশ দলের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ব্যস্ততা শুরু হওয়ার পর ঘরের মাটিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ওয়ানডে সিরিজে ৩-০, শ্রীলঙ্কাকে ২-১ ও অস্ট্রেলিয়াকে টি২০ সিরিজে ৪-১ ব্যবধানে বিধ্বস্ত করে বাংলাদেশ। তবে নিউজিল্যান্ড সফরে ওয়ানডে ও টি২০ সিরিজে ৩-০ ব্যবধানে হোয়াইটওয়াশ ও শ্রীলঙ্কা সফরে টেস্ট সিরিজে ১-০ ব্যবধানে হারে। গত এপ্রিলে বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান জানিয়েছিলেন লঙ্কানদের বিপক্ষে দুই সিরিজে দলের পারফর্মেন্স দেখে ডোমিঙ্গোর ব্যাপারে সিদ্ধান্ত। এ দুই সিরিজে দল ভাল করে এবং পরে জিম্বাবুইয়ে সফরে একমাত্র টেস্টে জয়, ওয়ানডে সিরিজে ৩-০ এবং টি২০ সিরিজে ২-১ ব্যবধানে জয় তুলে নেয় টাইগাররা। সর্বশেষ অসিদের বিপক্ষে টি২০ সিরিজে ঐতিহাসিক ৪-১ ব্যবধানে জয় ডোমিঙ্গোর অবস্থান দৃঢ় করেছে। তাই আসন্ন টি২০ বিশ্বকাপই নয়, আগামী বছরের টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্তই বাড়ছে ডোমিঙ্গোর মেয়াদ। এ বিষয়ে ১৫ আগস্ট ‘জাতীয় শোক দিবস’ উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বিসিবি সভাপতি পাপন বলেন, ‘আমরা এখন ১ বছরের জন্য চিন্তা-ভাবনা করছি। সামনে দুটো টি২০ বিশ্বকাপ আছে, আপাতত এই দুটো টি২০ বিশ্বকাপই আমাদের মাথায় আছে। তারপর সবার সাথে কথা বললে আরও বুঝতে পারব। এটা নিয়ে আসলে চূড়ান্ত কোন সিদ্ধান্ত এখনও হয়নি। ওনার মেয়াদ এই বিশ্বকাপ পর্যন্ত আছে। এটা নিয়ে কোন সমস্যা নেই। এখন পর্যন্ত তার চুক্তির মেয়াদ বাড়ানোর সম্ভাবনাই সবচেয়ে বেশি।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.